ব্লেড দিয়ে শিশুর শরীর ক্ষতবিক্ষত করা সেই মা গ্রেপ্তার

ব্লেড দিয়ে কেটে ও বিভিন্ন কায়দায় পিটিয়ে শিশু কন্যা মায়শা আকতারকে গুরুতর আহত করার ঘটনায় তার সৎ মা নিশু আকতারকে (২৪) গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। গতকাল বুধবার রাতে নিশু আকতারের বাবার বাড়ি থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। তিনি চট্টগ্রামের পটিয়া উপজেলার শোভনদন্ডী ইউনিয়নের রশিদাবাদ গ্রামের রিকশাচালক মো. নাজিম উদ্দিনের দ্বিতীয় স্ত্রী।এর আগে নির্যাতনের ঘটনায় শিশুর বাবা নাজিম উদ্দিন বাদী হয়ে থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। এর পরিপ্রেক্ষিতে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (পটিয়া সার্কেল) মো. তারিক রহমানের নেতৃত্বে একদল পুলিশ সৎ মাকে গ্রেপ্তার করে আজ বৃহস্পতিবার আদালতে প্রেরণ করেছে।

পুলিশ জানায়, পটিয়া শোভনদন্ডী ইউনিয়নের রশিদাবাদ গ্রামের রিকশাচালক নাজিম উদ্দিনের প্রথম স্ত্রীর মৃত্যুর পর তিনি নিশু আকতারের সঙ্গে দ্বিতীয় বিয়ে করেন। প্রথম স্ত্রীর সংসারে কন্যা সন্তান মায়শাকে রিকশাচালকের দ্বিতীয় স্ত্রী প্রায়ই শারীরিক নির্যাতন চালাতেন।এ বিষয়ে অতিরিক্ত পুরিশ সুপার মো. তারিক রহমান বলেন, ‘শিশুকে ব্লেড দিয়ে কেটে ক্ষতসহ নানাভাবে নির্যাতনের ঘটনায় থানায় একটি মামলা রেডর্ক করা হয়েছে। পুলিশ অভিযান চালিয়ে সৎ মা নিশু আকতারকে গ্রেপ্তার করে। তাকে আজ বৃহস্পতিবার আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.